Monday , September 16 2019
Download Free FREE High-quality Joomla! Designs • Premium Joomla 3 Templates BIGtheme.net
Home / আন্তর্জাতিক / ‘ভক্তরা জড়িয়ে ধরলে তাদের গায়ের দুর্গন্ধে অস্বস্তি বোধ হয়, ঘেন্না করে’, বিরক্তি প্রকাশ রানুর!

‘ভক্তরা জড়িয়ে ধরলে তাদের গায়ের দুর্গন্ধে অস্বস্তি বোধ হয়, ঘেন্না করে’, বিরক্তি প্রকাশ রানুর!

ফের খবরে উঠে এল রানু মণ্ডল। তবে এবার কোনও নতুন গান রেকর্ড করার জন্য নয়। ম্যানেজার অতীন্দ্র চক্রবর্তী ও তপনকে ‘ভগবানের চাকর’ বলার পর আবার এক বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন। এবার ভক্তদের ‘গায়ের দুর্গন্ধ’ নিয়ে মন্তব্য করলেন তিনি। বললেন, ভক্তরা যখন তাঁকে এসে জড়িয়ে ধরেন, তাঁদের গায়ের দুর্গন্ধে অস্বস্তি বোধ হয় তাঁর। এক এক সময় তো রীতিমত ঘেন্না করে।

রানাঘাট স্টেশনে বসে একসময় গান গাইতেন রানু মণ্ডল। বেশিদিনের কথা নয়, মাস খানেক আগেও এমন ছবি দেখেছে রানাঘাটবাসী। কিন্তু কয়েক মাসের মধ্যেই আমূল বদলে গিয়েছে রানুর জীবন। রানাঘাটের ভবঘুরে এখন বলিউডের বিখ্যাত প্লেব্যাক গায়িকা। এ আর রহমানের অফিস থেকে ইতিমধ্যেই নাকি রানু মণ্ডলের কাছে ফোন এসেছে। এছাড়া সোনু নিগমের মতো গায়কও তাঁর সঙ্গে গান গাওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন। সোশ্যাল মিডিয়ার ‘সুরসম্রাজ্ঞী’ ক্রমশ খ্যাতির সিঁড়ি উঠতে শুরু করে দিয়েছেন। কিন্তু যতই সিঁড়ির ধাপ পেরিয়ে উপরের দিকে উঠছেন, ততই শিকড়ের টান ভুলছেন রানু। এমনই অভিযোগ তুলেছে নেটিজেনরা।

অবশ্য এর পিছনে কারণও রয়েছে। শুধু শুধু বিতর্কের আগুন ছড়াতে রানুর সমালোচনা করেনি তারা। সম্প্রতি একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছিল। সেখানে রানুকে প্রশ্ন করা হয়, এই যে অতীন্দ্রের মতো মানুষের দৌলতে তিনি এত জায়গায় যাচ্ছেন, এনিয়ে তিনি কী বলবেন? সচরাচর এর উত্তরে লোকে বলে, “ভাল”। কিন্তু রানু তা বলেননি। উলটে তিনি যা বলেছেন, তাতে রেগে যায় নেটিজেনরা। রানু বলেন, “ভগবানের দৌলতে যাচ্ছি। ওরা ভগবানের সারভেন্ট, চাকর। আমি ওদের সাহায্যে যাচ্ছি না। ভগবানের সাহায্যে যাচ্ছি। ওরা ভগবানের চাকর হয়ে যাচ্ছে।”

এই বিতর্কের রেশ কাটতে না কাটতেই আবার এক বিতর্কিত মন্তব্য করলেন রানু। তিনি এখন সেলিব্রিটি। ফলে দেখা হলে অনুরাগীরা তাঁকে জড়িয়ে ধরতে চাইছেন। রানু বললেন, সেই অনুরাগীদের মধ্যে কারওর কারওর নাকি গায়ে বেশ দুর্গন্ধ। আর তাতে নাকি বেশ অস্বস্তি হচ্ছে তাঁর। কখনও কখনও ঘেন্নাও করছে। নেটদুনিয়ায় রানুর এই বক্তব্য ছড়িয়ে পড়ার পরই নেটিজেনদেরা ক্ষুব্ধ। তাদের মতে, ‘খ্যাতির স্বাদ পেতে না পতেই শিকড়কে ভুলতে শুরু করেছে রানু।’(তথ্য সৌজন্যে: প্রতিদিন)

Facebook Comments

Check Also

যে গ্রামে মুসলমানদের অনুপস্থিতিতে মসজিদ দেখাশোনা করে হিন্দুরা

এলাকায় নানান কারণে কমছে মুসলিমদের সংখ্যা। এর জন্য মসজিদের খেদমতে সব সময় মুসলিমরা সময় দিতে …